1. balaram.cox@gmail.com : balaram das : balaram das
  2. babuibasa@gmail.com : editor :
  3. news24nazrul@gmail.com : Nazrul Islam : Nazrul Islam
  4. rokunkutubdia@gmail.com : reporter :
  5. rokunkutubdia@yahoo.com : Rokiot Ullah : Rokiot Ullah
শুক্রবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১০:২১ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ কালারমারছড়ার নোনাছড়িতে ৭ম শ্রেণীর ছাত্রী অপহরণের অভিযোগ ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ হলদিয়াপালং ইউনিয়ন শাখার দ্বি-বার্ষিক কাউন্সিল সম্পন্ন উখিয়ায় নতুন ইউএনও নিজাম উদ্দিন আহমেদ উখিয়ার মানুষ সহযোগিতা পরায়ণ বলেছেন সদ্য বিদায়ী ইউএনও নিকারুজ্জামান চৌধুরী উখিয়ায় র‍্যাবের অভিযানে ১৯৬০০ পিস ইয়াবাসহ আটক দুই রোহিঙ্গা রোহিঙ্গা সংকট এবং করোনা মোকাবিলায় ইউএনও নিকারুজ্জামান ছিলেন খাঁটি দেশপ্রেমিক-এমপি শাহীন রাজাপালং ইউপির ৯ নং ওয়ার্ডের উপ-নির্বাচনে একই পরিবারের মাতা-ছেলে-জামাতার মনোনয়ন নাইক্ষ্যংছড়ি থানার ওসি মুহাম্মদ অালমগীর হোসেন জেলার শ্রেষ্ঠ অফিসার ইনচার্জ নির্বাচিত

জেলা আ’লীগ সমীপে উখিয়া সভাপতি হামিদুল হক চৌধুরী’র আহবান কমিটি সংক্রান্ত বিষয়ে বিভ্রান্তি নিরসন করুন

  • সর্বশেষ আপডেট : শনিবার, ৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ১৩ জন সংবাদটি পড়েছেন

 

নিজস্ব প্রতিবেদক,উখিয়া(কক্সবাজার)

আমি অধ্যক্ষ হামিদুল হক চৌধুরী, সভাপতি বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ উখিয়া উপজেলা শাখা ও চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ, উখিয়া। আমি ২০০৩ সালে তৎকালীন বিএনপি -জামায়াত জোট সরকারের আমলে আওয়ামী লীগের দুঃসময়ে উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন ও কাউন্সিলে প্রত্যক্ষ ভোটে সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হই।সংবিক্ষুব্ধ ওই সময়ে দলকে নেতৃত্ব দিয়ে উখিয়া উপজেলায় আমার প্রাণের সংগঠন আওয়ামী লীগকে সুদৃঢ় মজবুত ভিতের উপর দাড় করাতে সক্ষম হই- ত্যাগী ও নিবেদিত নেতাকর্মীদের সর্বাত্মক সহযোগিতায়। তারই পুরষ্কার স্বরূপ ২০১৫ সালে উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে আমাকে নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতায় নেতাকর্মীরা সভাপতি নির্বাচন করে এবং আজ অবধি সভাপতির দায়িত্ব অত্যন্ত বিশ্বস্ততা, স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতার সাথে পালন করে যাচ্ছি। সংগঠনের প্রতি আমার ত্যাগ, অবদান ও অভিজ্ঞতাকে মূল্যায়ন করে ২০১৯ সালে অনুষ্ঠিত উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে বাংলাদেশ আওয়ামি লীগ আমাকে “উপজেলা চেয়ারম্যান” পদে মনোনয়ন প্রদান করে এবং আল্লাহ পাকের অশেষ রহমতে উখিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হই। উল্লেখ্য ২০১৯ সাল পর্যন্ত উখিয়া “বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছা মুজিব সরকারি মহিলা কলেজ” এর প্রতিষ্ঠাতা অধ্যক্ষও ছিলাম আমি।বিগত ক’দিন যাবৎ বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ও ০২/০৯/২০২০ তারিখে প্রকাশিত কয়েকটি স্থানীয় পত্রিকায় পরিবেশিত সংবাদের মাধ্যমে অবগত হই,যে – উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রত্যক্ষ ভোটে নির্বাচিত ও কার্যকরী কমিটির স্থলে একটি আহবায়ক কমিটি আবার কোন কোন ক্ষেত্রে সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটি গঠন করা হয়েছে। সমগ্র দেশে যখন “কোভিড -১৯ ” এ স্থবির, সে সময়ে শোকের মাস আগষ্টে এই ধরনের একটি সিদ্ধান্তের খবরে আমি যুগপৎ বিস্মৃত ও হতবাক হয়েছি।এমতাবস্থায় আমাদের সাংগঠনিক উর্ধ্বতন স্তর ককসবাজার জেলা আওয়ামী লীগ বরাবর আমার সবিনয়ে জিজ্ঞাসা –

১.ককসবাজার জেলা আওয়ামী লীগ আদৌ উখিয়া উপজেলায় কথিত আহবায়ক বা সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটি গঠন করেছে কিনা?
২.এই বিষয়ে জেলা আওয়ামী লীগের কোন সভা হয়েছে কিনা?
৩.যদি হয়ে থাকে কোন তারিখে সভা হয়েছে?
৪.সভা আহ্বানের নোটিশে বা সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই ধরনের কোন এজেন্ডা ছিল কিনা?
৫.এই ধরনের সিদ্ধান্ত গ্রহণের কথা বিভিন্ন সূত্রে প্রকাশ হচ্ছে, সেক্ষেত্রে জেলা আওয়ামী লীগের এ প্রসঙ্গে কোন সংবাদ বিজ্ঞপ্তি বা বিবৃতি প্রকাশ আবশ্যক কিনা?
৬.যেহেতু উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের ক্ষেত্রে এহেন সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়েছে মর্মে বলা হচ্ছে উখিয়া আওয়ামী লীগের সভাপতি /সাধারণ সম্পাদককে সভায় উপস্থিত থাকার জন্য নোটিশের মাধ্যমে আহ্বান করা হয়েছিল কিনা?একই সাথে সাংগঠনিক অন্যান্য প্রক্রিয়া অনুসরণ করা হয়েছিল কিনা?
৭.এই সিদ্ধান্ত যদি হয়ে থাকে তাহলে উপজেলা সভাপতি /সাধারণ সম্পাদককে লিখিতভাবে অবিহিত করা উচিত কিনা?
৮.বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কোন বিধান বা ধারা বলে এই সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে?
৯.আমার জানামতে এবং গঠনতন্ত্রের আলোকে দলের প্রত্যেক স্তরে কার্যকরি ও নির্বাচিত কমিটি তৎপরবর্তী মেয়াদের কমিটি গঠনের কার্যক্রম পরিচালনা করবে।এমন প্রক্ষাপটে বর্তমান সভাপতি / সাধারণ সম্পাদকের উপরই পরবর্তী সম্মেলন ও কাউন্সিল অনুষ্ঠানের দায়িত্ব এবং এখতিয়ার। যদি কোন ব্যতয় হয় সেক্ষেত্রে উর্ধ্বতন স্তর বাংলাদেশ আওয়ামি লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের নির্দেশনার জন্য আবেদন করবে এবং কার্যনির্বাহী সংসদ যে নির্দেশনা বা সিদ্ধান্ত প্রদান করবে সে অনুযায়ী কার্য পরিচালনার জন্য ব্যবস্থা গ্রহণের কথা গঠনতন্ত্রে উল্লেখ করা হয়েছে। এক্ষেত্রে ককসবাজার জেলা আওয়ামী লীগ লিখিতভাবে কেন্দ্রের কোন নির্দেশনা পেয়েছে কিনা?
এমতাবস্থায় মুক্তিযুদ্ধের ঐতিহ্যমন্ডিত এবং বাংলাদেশের বৃহত্তম রাজনৈতিক সংগঠন বাংলাদেশ আওয়ামি লীগের গুরুত্বপূর্ণ শাখা উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের ভাবমূর্তি মারাত্মকভাবে ক্ষুন্ন হয়েছে এবং তৃণমূলের হাজার হাজার নিবেদিত ও আদর্শিক নেতাকর্মী বিভ্রান্ততে পড়েছে। তারা হয়েছে হতাশাচ্ছন্ন।একই সাথে জেলা আওয়ামী লীগের সংখ্যাগরিষ্ঠ নেতৃবৃন্দও এ বিষয়ে তাদের বিস্ময় প্রকাশ করেছেন।এ বিষয়টিকে কেন্দ্র করে যেকোন মূহুর্তে উখিয়ায় অনাকাংখিত, অনভিপ্রেত ও দুঃখজনক ঘটনা সংগঠিত হওয়ার আশংকা মোটেও উড়িয়ে দেওয়া যায় না।
অতএব বাংলাদেশ আওয়ামি লীগ, ককসবাজার জেলা শাখার সভাপতি /সাধারণ সম্পাদক মহোদয়কে উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক কমিটি সংক্রান্ত বিষয়ে বিভ্রান্তি নিরসনে তথ্য নির্ভর বিবৃতি গণমাধ্যমে প্রকাশ করার জন্য বিনীতভাবে আহ্বান জানাচ্ছি।

বিনীত…অধ্যক্ষ হামিদুল হক চৌধুরী
সভাপতি,বাংলাদেশ আওয়ামি লীগ,উখিয়া উপজেলা

চেয়ারম্যান, উখিয়া উপজেলা পরিষদ।

আপনি সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো সংবাদ
© ২০২০ চট্টগ্রাম টুডে কর্তৃক সর্বসত্ব সংরক্ষিত।
Theme Customized By BreakingNews
error: Content is protected !!