1. balaram.cox@gmail.com : balaram das : balaram das
  2. babuibasa@gmail.com : editor :
  3. news24nazrul@gmail.com : Nazrul Islam : Nazrul Islam
  4. rokunkutubdia@gmail.com : reporter :
  5. rokunkutubdia@yahoo.com : Rokiot Ullah : Rokiot Ullah
শনিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১০:২০ অপরাহ্ন

মহেশখালীতে করোনা রোগী ১২, খুন ১০

  • সর্বশেষ আপডেট : সোমবার, ১৮ মে, ২০২০
  • ৬৯ জন সংবাদটি পড়েছেন

রকিয়ত উল্লাহ, মহেশখালী:

ডে টু ডে মার্ডার, ২৪ ঘন্টার ব্যবধানে ২ খুন, দু‘সপ্তাহের ব্যবধানে ৬খুন

মহেশখালী উপজেলায় সামাজিক বিরোধের জেরে, তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সম্প্রতি দু‘সপ্তাহের ব্যবধানে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রসহ ৬ জন খুন হয়েছেন। এছাড়াও আত্মহত্যা ও রহস্য জনক মৃত্যু হয়েছে ৪ জনের। ডে টু ডে মার্ডার হয়েছে। ২৪ ঘন্টা না পেরুতেই দুজনের খুন হয়েছে।

বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ জানান, সংঘাতের ইন্ধনদাতারা ধরাছোঁয়ার বাইরে এবং বিচার না হওয়ায় এসব অপরাধ অব্যাহত আছে। এদিকে করোনা ইস্যুতে পুলিশের ভূমিকা প্রশংসনীয় হলেও আইনশৃঙ্খলার দিক দিয়ে খুবই অবনতি হয়েছে বলে জানান স্থানীয়রা।

এ নিয়ে পুলিশের ভূমিকায় প্রশ্ন তুলেছেন অনেকেই।

হোয়ানক রাজুয়ার ঘোনা গ্রামে গত কাল ১৭ই মে রাত ৯টার সময় রাজুয়াঘোনা এলাকায় সরকারী ১২নং পাহাড়ী খাস জমির দখলের বিরোধের জের ধরে স্থানীয় হাবীবুর রহমানের পুত্র রাহমত উল্লাহ কে ধারালো দা দিয়া মারাত্বক জখম করে একই এলাকার আবু তাহের এর পুত্র এনামুল করিম (প্রকাশ নুরুনির পুঁয়া) ও তার লোকজন।

ধারালো দা দিয়ে শরীরের বিভিন্ন স্থানে কাটা রক্তাক্ত হলে মুমূর্ষ অবস্থায় মহেশখালী হাসপাতাল থেকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মুত্যু হয়। সংবাদ পেয়ে মহেশখালী থানার ওসি তদন্ত বাবুল আযাদ ও এ এস আই মালেকের নেতৃত্বে পুলিশ দ্রুত অভিযান চালিয়ে একজন পুরুষ ও একজন মহিলাকে অাটক বরে।

জানা যায় ১৫ মে ভোর ৫টার সময় মহেশখালী উপজেলার ছোট মহেশখালী ইউনিয়নের সিপাহীর পাড়া ২নং ওয়ার্ডে তুচ্ছ ঘটনার (আমের) বিষয়ে ভাই ভাইয়ে কথা কাটাকাটির এক পযার্য়ে মারামারিতে ভাই ও তার সঙ্গীর হাতে মারাত্মক ভাবে আহত হয় ছালেহ আহমদ ও তার কলেজ পড়ুয়া ছেলে আয়ুব। ছালেহ আহমদের অবস্থা অবনতি হলে চট্টগ্রাম নিয়ে যাওয়া হয়। চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১৬ই মে রাত ১১ টা ৪৫ মিনিটের সময় ছালেহ আহমদের মৃত্যু হয়।

অপর দিকে বড় মহেশখালী জাগিরা ঘোনায় গত ০৫ মে রহস্য জনক ভাবে বৃদ্ধ নুর শফির মৃত্যু হলেও ১১ই মে হত্যা মামলা রুজুর জন্য সংবাদ সম্মেলন করে তারই ছেলে।
শাপলাপুর ইউনিয়নের নয়াপাড়া গ্রামে গত ৪ মে তুচ্ছ ঘটনায় প্রতিপক্ষের লাঠির আঘাতে খুন হন কলেজ ছাত্র মেহেদী ।এর পরে গত ৮ই মে একই ইউনিয়নের বধিয়ার পাড়ায় ছোট বাচ্চাদের পানি ছিটানোকে কেন্দ্র করে বখাটের লাথিতে খুন হয় স্কুল ছাত্রী নাছিমা।

গত ১২ই এপ্রিল উপজেলার মাতারবাড়ীতে যুবলীগ নেতা দেলোয়ারের হাতাহাতিতে পেটান আলীর খুন হওয়ার অভিযোগ উঠলেও লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মহেশখালী থানায় প্রেরণ করলেও রহস্য জনক ভাবে হার্ট অ্যাটাক হয়েছে বলে জানা যায়।পরে মামলা হয়নি।

তাছাড়া মাতারবাড়ীতে কয়েকদিন আগে রাতে ফোনে ডেকে নিয়ে নিখোঁজ হওয়ার পর পরের দিন মিলল জেলে ইলিয়াসের লাশ। ঐ মৃত্যুর রহস্য জনক ভাবে হওয়ার কোন মামলাও করেনি আত্মীয়-স্বজন। এর কিছু দিন আগে সম্পত্তির লোভে দুই ভাই মিলে ছোটভাইকে শামোকে হত্যা, ছোট মহেশখালীতে বৃদ্ধ শফি খুন। গোরকঘাটা চর পাড়াই স্ত্রীর সাথে অভিমান করে আলতাজ নামে একজনের আত্মহত্যা।

এছাড়া মাতারবাড়ীতে সালিশ চলা কালে দু পক্ষের রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে আহত ৫ জন‌। পানির ছড়া মনু বাহিনীর হাতে দুজন যখম, কুতুবজোমে ৫ বছর বয়সী মেয়েকে ধর্ষণ সহ নানা বিধ অপরাধে জড়িয়েছে দ্বীপ অঞ্চলের বাসিন্দারা।

এ বিষয়ে মহেশখালী থানার অফিসার ইনচার্জ প্রভাষ চন্দ্র ধর এর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে হুট করেই একজন কে একজন খুন করতে দ্বিধা করে না। যে ঘটনাগুলোতে কারউ তেমন হাত থাকে না ‌। তারপর ও গতরাতে খুন হওয়া রাহমত উল্লাহর ঘটনায় পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে দু জন গ্ৰেফতার করেছে। তা ছাড়া ও ছালেহ আহমদ, মেহেদী , নাছিমাসহ অন্যান্য হত্যার আসামিদের কে অতিশীঘ্রই গ্ৰেফতার করা হবে বলে জানান। এবং আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে মহেশখালী থানা পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলে জানান।

মহেশখালী-কুতুবদিয়া সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার রতন দাশ গুপ্ত বলেন সামান্য তুচ্ছ ঘটনা পারিবারিক বিষয় নিয়ে এসব হচ্ছে খুন খারাবী হচ্ছে , মামলা ও হচ্ছে আসামীরাও ধরা পড়েছে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তৎপরতা জোরদার রয়েছে।

আপনি সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো সংবাদ
© ২০২০ চট্টগ্রাম টুডে কর্তৃক সর্বসত্ব সংরক্ষিত।
Theme Customized By BreakingNews
error: Content is protected !!